সারাদেশ

‘দেশে আইনের শাসন নেই, তাই মানুষ বেপরোয়া হয়ে গেছে’

টাইমস টিভি ডেস্কঃ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. নেহাল করিম বলেন, প্রথমত হচ্ছে দেশে আইনের শাসন নেই। তাই মানুষ বেপরোয়া হয়ে গেছে। দ্বিতীয়ত হচ্ছে, লকডাউনের কারণে বেশীরভাগ প্রান্তিক জনগোষ্ঠী দারিদ্রসীমা'র নিচে গেছে। অনেকের আয় চলে গেছে, অনেকে আয় কমেছে। মূলত একটা বীভৎস অবস্থা। এটি আগামী দুই-তিন মাস পর পুরোদমে বোঝা যাবে। ছিনতাই, চু'রি-ডা'কাতি বেড়ে গেছে।সম্প্রতি ক'রো'নাকালীন সংকটে দেশে সামাজিক অ'প'রা'ধ, অবক্ষয়, স'হিং'সতা সহ সার্বিক বিষয় নিয়ে বাংলা ইনসাইডার এর সঙ্গে একান্ত আলাপচারিতায় এসব কথা বলেছেন ড. নেহাল করিম। পাঠকদের জন্য ড. নেহাল করিম এর সাক্ষাৎকার নিয়েছেন বাংলা ইনসাইডার এর নিজস্ব প্রতিবেদক মাহমুদুল হাসান তুহিন।

অধ্যাপক ড. নেহাল করিম বলেন, শিক্ষার্থীদের যদি বাইরে বের হতে না দিয়ে ঘরের মধ্যে ব'ন্দি রাখেন, তাহলে তার মানসিক বিকাশ ঘটবে না। খেলার মাঠ নেই, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ। শিক্ষার্থীরা কি করবে? তাই তারা সাধারণ প্রবৃত্তি হিসেব টিকট'ক সহ এসব কাজে আসক্ত হচ্ছে। ক'রো'নাকালে মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়েছে। মানুষের মধ্যে ভ'য়ের পরিস্থিতি ও অনিশ্চয়তা মানুষকে স্বার্থপর করে তোলে। ফলে ক'রো'নাকাল ও সংক্রামক রোগের এই পরিস্থিতি সমাজে নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে, এটা অস্বাভাবিক নয়। এ নিয়ে যে সামাজিক গবেষণা হওয়া প্রয়োজন। আমাদের কাছে কোনো তথ্য-উপাত্ত বা পরিসংখ্যান নেই। ফলে সামাজিকভাবে এই পরিস্থিতি ব্যাখ্যা করা কঠিন।

ধনী-গরিবের মধ্যে অ'প'রা'ধ প্রবণতা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ধনী-গরিব দুই শ্রেণির ক্ষেত্রে অ'প'রা'ধের প্রবণতা ভিন্ন ভিন্ন। ধনীরা ঘরে থাকতে বাধ্য হয়েছে। আর্থিক চাপ মোকাবিলা করার একরকমের সাম'র্থ্য তাদের ছিল। ফলে তাদের ওপর প্রভাবটা পড়েছে একধরনের। দরিদ্র জনগোষ্ঠী পড়েছে অর্থনৈতিক সংকটে। এটা তাদের জীবনযাপনকে অসম্ভব চাপের মধ্যে ফেলেছে। সরকার যে সহায়তা করেছে, সেটা চাহিদার তুলনায় খুবই অ'প্রতুল।খু'ন করার পর অ'তিরিক্ত টুকরো করার কারণ হিসেবে অধ্যাপক ড. নেহাল করিম বলেন, খু'ন তো করেছেই। তারপর খু'ন করার পর অ'তিরিক্ত টুকরো করা হলো ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ। অর্থাৎ মনের দীর্ঘদিনের ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ।কলাবাগানে চিকিৎসক হ'ত্যাকা'ণ্ডের মত ঘটনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এমন ঘটনা প্রায়ই ঘটে। এটা অভাবের কারণেই যায়। টাকা-পয়সার জন্য বাড়ির দারোয়ান, কাজের লোক, ড্রাইভা'ররা মিলে যু'ক্তি করে এমন হ'ত্যাকা'ণ্ড ঘটিয়ে টাকা ভাগ করে নেয়। ব্যপারটা এমন হয়।

Back to top button