সারাবিশ্ব

যু'ক্তরাষ্ট্রে ফি'লি'স্তিনিদের সাথে একাত্মতা জানিয়ে ই'স'রাইলি জাহাজ অবরোধ

টাইমস টিভি ডেস্কঃ ফি'লি'স্তিনিদের অধিকার নিয়ে কাজ করা এক সংগঠনের কর্মীরা একটি ই'স'রাইলি শিপিং লাইনের জাহাজকে যু'ক্তরাষ্ট্রের বন্দর নগরীগুলোতে তাদের মাল খালাস করতে দেয়নি। অসংখ্য আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘনের দায়ে অ'ভিযু'ক্ত ই'স'রাইলের ওপর চাপ সৃষ্টি করার জন্য তারা এ কর্মসূচি হাতে নেন।বুধবার দ্যা আরব রিসোর্স অ্যান্ড অরগানাইজিং সেন্টার (আরোক) নামের একটি সংগঠন এ কর্মসূচি নিয়েছে এবং তাতে নেতৃত্ব দিয়েছে। সংগঠনটি সংবাদ মাধ্যম মিডলইস্ট আইকে ইমেলের মাধ্যমে বলেন, তাদের কর্মসূচি হলো জাহাজ অবরোধ করা। এ কর্মসূচি আওতায় সফলতার সাথে ই'স'রাইলের জাহাজ কোম্পানি জিম ইন্টেগরেটেড শিপিং সার্ভিস লিমিটেডের একটি পণ্যবাহী জাহাজকে ক্যালিফোর্নিয়ার ওকল্যান্ড থেকে বিতাড়িত করেছে তারা।

ই'স'রাইলের জাহাজ কোম্পানি জিম ইন্টেগরেটেড শিপিং সার্ভিস লিমিটেড বিশ্বের ১০ম বৃহৎ শিপিং কোম্পানি। তারা সংবাদ মাধ্যম মিডলইস্ট আইকে ইমেলের মাধ্যমে বলেন, তাদের জাহাজকে বন্দরে মাল খালাস করতে দেয়া হয়নি। কিন্তু, কোনো কারণ উল্লেখ করা হয়নি। ওকল্যান্ড বন্দরে আমাদের কার্যক্রম বাধাগ্রস্ত হওয়ায় বেশি সময় লাগছে। এছাড়া নির্ধারিত সময়ের মধ্যে আমাদের দূরপ্রাচ্যে যেতে হবে। তাই আর কোনো অঘটনা না ঘটলে, যু'ক্তরাষ্ট্রের পশ্চিম উপকূলের অন্য বন্দরে আমাদের ডা'কা হবে।গাজা যু'দ্ধের পর ফি'লি'স্তিনিদের প্রতি বেড়েছে মা'র্কিন সম'র্থন, বিপাকে ই'স'রাইল

আরব রিসোর্স অ্যান্ড অরগানাইজিং সেন্টারের (আরোক) মুখপাত্র ওয়াসিম হেজ বলেন, ‘জিম ইন্টেগরেটেড শিপিং সার্ভিসের জাহাজটির ওকল্যান্ড বন্দরে মাল খালাস করার কথা ছিল। কিন্তু, জাহাজটির এ কার্যক্রমে বাধা দিতে পাঁচ হাজার লোক এ আ'ন্দোলনে সমবেত হয়েছে। জাহাজটি তাদের মাল খালাস করার চেষ্টা করলে তাদের বাধা দেয়া হবে।

আরব রিসোর্স অ্যান্ড অরগানাইজিং সেন্টারের (আরোক) প্রধান নির্বাহী পরিচালক লারা কিসওয়ানি বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য জিম ইন্টেগরেটেড শিপিং সার্ভিসের জাহাজের মাধ্যমে পরিচালিত ই'স'রাইলের আন্তর্জাতিক বাণিজ্যকে বাধাগ্রস্ত করা, এর মাধ্যমে বর্ণবাদী রাষ্ট্রটিকে রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিকভাবে বিপর্যস্ত করা হবে।’

Back to top button